HealthMen

করোনা মহামারি তে যেখানে আমাদের দেশ অতিমাত্রায় আক্রান্ত, হাসপাতাল গুলোতে নেই তিল ধারনের যায়গা সেখানে একই সাথে পাল্লা দিয়ে বর্ষা মৌসুমের শুরু থেকেই ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত রোগীরা সংখ্যা বাড়ছে হাসপাতালগুলোতে। বিগত বছরগুলোর মতো এবারও গলাব্যথা বা ডায়রিয়ার মতো পরিচিত কিছু ভিন্নধর্মী লক্ষণ নিয়ে ডেঙ্গু জ্বর দেখা দিচ্ছে। আসুন জেনে নেওয়া যাক এ বছর ডেঙ্গু কিকি লক্ষ্যণ প্রকাশ করছে?

★ প্রথম দিন থেকে প্রচণ্ড জ্বর

★ প্রচণ্ড মাথাব্যথা, চোখের পেছনে ব্যথা, শরীরে ব্যথা, জয়েন্ট এ ব্যাথা।

★ ত্বক লাল হয়ে যাওয়া এবং কিছু ক্ষেত্রে ত্বকে র্যাশ বা দানা দেখা দেওয়া।

★ কারও কারও বমি হতে দেখা যাচ্ছে।

★ ডেঙ্গু জ্বরে রক্তের অনুচক্রিকা বা প্ল্যাটিলেট মাত্রা বিপজ্জনক হারে কমে যেতে দেখা যাচ্ছে। এটি ডেঙ্গু জ্বরের একটি জটিলতা।

অনুচক্রিকা কমে গেলে দাঁত, ত্বকের নিচ, নাক ইত্যাদি স্থানে রক্তক্ষরণের ঝুঁকি বাড়ে। এই রকম যেকোনো লক্ষ্যন দেখা দিলে,জটিলতা এড়াতে দ্রুত একজন ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে এবং চিকিৎসা শুরু করতে হবে। করোনা মহামারিতে হাসপাতালে যাওয়ার ঝুকি না নিয়ে হেলথমেন এ ঘরে বসেই রেজিস্টার্ড ডাক্তারের পরামর্শ নিন যেকোনো সময়, ইনবক্স করুন m.me/healthmen.services অথবা ডায়েল করে 01311040092 নম্বরে।

আসুন জেনে নেই ডেঙ্গু প্রতিরোধে আমাদের করণীয় গুলো কি কি:

—মশা দূর করার যেসব ওষুধ আছে তার নিয়ন্ত্রিত ব্যবহার আমাদের কিছুটা উপশম দিতে পারে।

—প্রতিদিন ঘুমানোর আগে মশারি ব্যবহার করা।

—জমে থাকা পানি ফেলে দেওয়া, যাতে মশা ডিম পাড় না পারে

কেও যদি আক্রান্ত হয় রোগীর ক্ষেত্রে করণীয় :

—প্রচুর পরিমাণে পানি, শরবত ইত্যাদি তরল খাদ্য পান করতে হবে।

—ভিটামিন-সি জাতীয় দেশি ফল বেশি করে খাওয়া উচিত। কারণ এগুলো রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

—ধূমপানের অভ্যাস ত্যাগ করা উচিত। কারণ এটি রক্তের উপাদানের তারতম্য করাসহ নানাবিধ ক্ষতি করে।

—জ্বর হলে পরীহ্মা না করে নিজ থেকে চিকিত্সা শুরু করা ঠিক নয়। জ্বর দেখা দিলে অবশ্যই বিশেষজ্ঞ অথবা এমবিবিএস চিকিত্সকের শরণাপন্ন হওয়াটাই নিরাপদ। স্বাস্থ্যগত যেকোন সমস্যাকে অবহেলা না করে একজন রেজিস্টার্ড এমবিবিএস চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। ঘরে বসে এপয়েন্টমেন্ট নিন হেলথমেন এ। বিস্তারিত জানতে ইনবক্স করুন m.me/healthmen.services অথবা ডায়েল করুন 01311040092 নম্বরে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
X